বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ১০:১৬ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
নওগাঁয় বিস্কুট খেয়ে দুই শিশু কন্যার মৃত্যু- মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি জাফলংয়ে কথা কাটাকাটি থেকে মারামারি অতঃপর ঘুষিতে প্রাণ গেল শ্রমিকের – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি নওগাঁয় কোটা বিরোধী আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের মাঠে নামতেই দেয়নি ছাত্রলীগ- মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি কোটা বাতিল আন্দোলনের যৌক্তিকতা নেই: প্রধানমন্ত্রী – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি বীর মুক্তিযোদ্ধার পৈত্রিক সম্পত্তি সরকারিভাবে একোয়ারের নোটিশ, দিশেহারা অসুস্থ বীর মুক্তিযোদ্ধার পরিবার – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি রাজশাহীতে মুক্তিযোদ্ধা ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি চলে গেলেন না ফেরার দেশে বাংলাদেশের সাবেক ক্রিকেটার রাজশাহীর কৃতি সন্তান খালেদ মাসুদ পাইলটের’ মা নার্গিস আরা বেগম- মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি’ বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সন্তান সংসদ চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিটি অনুমোদন – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি বাবুগঞ্জে এস এস সি কৃতকার্য ছাত্রী ধর্ষিতা অবশেষে পুত্র সন্তানের মা হলেন – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি ভালুকায় হঠাৎ বৃষ্টিতে পৌরসভার কয়েকটি ওয়ার্ডে পানি জমে জনদুর্ভোগ – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি

যশোরে জুম্মান হত্যায় ১৩ জনের বিরুদ্ধে জিআরপি থানায় অভিযোগ – মুক্তিযুদ্ধের চেতনা টিভি

সংবাদ দাতার নাম
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪
  • ৭৪ বার পড়া হয়েছে

যশোরে জুম্মান হত্যায় ১৩ জনের বিরুদ্ধে জিআরপি থানায় অভিযোগ
মো: ফিরোজ আহম্মেদ তালিব
সদর উপজেলা বিশেষ প্রতিনিধি, যশোর।
যশোর রেলস্টশনে ১৩ মামলার আসামি জুম্মান খুনের ঘটনায় পুলিশ এখনো কাউকে আটক করতে পারেনি। রেলস্টেশনে হত্যাকাণ্ডের কারণে জিআরপি খুলনা থানায় মামলা হচ্ছে। নিহতের ভাই মামুন ১৩ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত পরিচয় আরো ৪/৫ জনের নামে একটি জিআরপি থানায় একটি অভিযোগ করেছেন। তবে হত্যায় জড়িত নয় এমন অনেককে ফাঁসানোর চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে।
হত্যার ব্যাপারে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন জিআরপি কুষ্টিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মজনুর রহমান ও খুলনার জিআরপি থানার ওসি মোশারফ হোসেন। রোববার ওই দুই কর্মকর্তা যশোর জিআরপি ফাঁড়িতে আসেন। তাদের সঙ্গে ছিলেন যশোর জিআরপির ইনচার্জ এসআই সাহিদুল ইসলাম।
এলাকাবাসী জানিয়েছে, নিহত জুম্মান নিজেও একজন দুর্বৃত্ত ছিলেন। র‌্যাবের সোর্স হিসেবে কাজ করতেন। জুম্মান অনেক মানুষকে ফাঁসিয়েছেন। মাদক ব্যবসা ছিলো তার মূল পেশা। রায়পাড়ার প্রিন্স তার কাছ থেকে বাকিতে দুই কেজি গাঁজা কিনেছিল। ওই গাঁজার টাকা চাওয়া নিয়ে প্রিন্সসহ তার সঙ্গীদের সাথে বিরোধের সৃষ্টি হয় তার। এর জেরে জুম্মানকে শনিবার সন্ধ্যার দিকে ধাওয়া করে রেলস্টেশন এলাকায় ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়।
নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, জুম্মান হত্যার ঘটনায় খুলনা জিআরপি থানায় ১৩ জনের নাম উল্লেখ করে একটি অভিযোগ করা হয়েছে। অভিযোগ মামলা হিসেবে রেকর্ড হয়েছে কি না তারা এখনো জানে না। তবে ঘটনায় জড়িত ১৪ জনের নাম পাওয়া গেছে।
তারা হলো, রায়পাড়ার খালিদ হোসেনের ছেলে ইমন, রিপনের ছেলে প্রিন্স, কালা বাবুর ছেলে রনি, শংকরপুর পশু হাসপাতাল এলাকার কাজী তৌহিদের ছেলে রাকিব ওরফে ভাইপো রাকিব, রেলস্টেশন রোডের খাদ্য গুদামের পেছনের রবিউল ইসলাম রবির ছেলে শুভ, বেজপাড়া তালতলার মোড় এলাকার ইমান আলীর ছেলে সবুজ, রেলস্টেশন এলাকার হোটেল শাহনাজের পেছনের তরিকুল ইসলামের ছেলে রুবেল, রেললাইনের পাশের কলাবাগান এলাকার ছোট রনি, পুলেরহাট এলাকার মোহাম্মদ, রায়পাড়ার ঢ্যাপ পকেটমারের ছেলে সাগর, জাফরের ছেলে সজিব, কিসলু গাজীর ছেলে শাহিন এবং শংকরপুর জমাদ্দারপাড়ার বিপ্লব।
এলাকাবাসী জানিয়েছে, এই তালিকায় অনেককে আসামি করা হচ্ছে উদ্দেশ্যমূলক ভাবে। ঘটনার সময় ছিল মাত্র ৬ জন। কিন্ত আসামি হচ্ছে দ্বিগুণ। বিশেষ করে বিপ্লব নামে এক ভাঙরি ব্যবসায়ীকে আসামি করা হয়েছে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্য মূলকভাবে। কিছুদিন আগে বিপ্লবের কারখানায় দুইটি ওয়ানশুটার গান রেখে দিয়ে র‌্যাবের কাছে খবর দিয়েছিল নিহত জুম্মান। সে সময় জুম্মান র‌্যাবের সোর্স হিসাবে কাজ করতো। র‌্যাব যখন অস্ত্র উদ্ধার করে তখন আসল বিষয়টি অনেকে জেনে যায়। ফলে এই ঘটনাটি তদন্ত করে ডিবি পুলিশ। ডিবি পুলিশ তদন্ত করে জানতে পারেন ব্যবসায়ী বিপ্লবকে ফাঁসানোর জন্য জুম্মান অস্ত্র রেখে দেয়। ফলে জুম্মান, প্রিন্সসহ ৪/৫জনের নামে ডিবি পুলিশ একটি মামলা করে। তখন থেকে জুম্মান ব্যবসায়ী বিপ্লবকে অব্যাহত ভাবে টাকার জন্য চাপ দিতো। এখন জুম্মান মারা যাওয়াতে বিপ্লবকে ফের ফাঁসাতে এবং হয়রানি করতে মামলা সাজানো হচ্ছে।

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আজকের নামাজের সময়সুচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৩:৫৭ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০৮ অপরাহ্ণ
  • ১৬:৪৩ অপরাহ্ণ
  • ১৮:৫৩ অপরাহ্ণ
  • ২০:১৭ অপরাহ্ণ
  • ৫:১৯ পূর্বাহ্ণ
©2020 All rights reserved
Design by: POPULAR HOST BD
themesba-lates1749691102